ভারত সফরে আসছেন শেখ হাসিনা, রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে আলচনা হতে পারে মোদীর সঙ্গে

0
18
প্রতীকী ছবি

খাস খবর ডেস্ক: ভারত সফরে আসছেন শেখ হাসিনা। চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসেই বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন ভারত সফরের কর্মসূচীতে অন্তর্ভুক্ত হতে পারে রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসনের বিষয়টি। বিশেষ করে, মায়ানমার থেকে বাংলাদেশে রোহিঙ্গাদের অবৈধ বসবাসের ফলে উদ্ভূত সমস্যা যেমন, মৌলবাদের বৃদ্ধি, মাদক পাচার, নারই ও শিশু পাচারের বিষয়গুলিও উত্থাপন করা হবে।

আরও পড়ুনঃ কয়লা পাচারকাণ্ডের লিঙ্কম্যান বিনয় মিশ্রর সন্ধানে ১ লক্ষ পুরস্কার, ঘোষণা CBI এর

এই বিষয়ে বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব মোমেন বলেছেন, “আমাদের কাছে, একমাত্র সম্ভাব্য সমাধান হল রোহিঙ্গাদের মায়ানমারে তাঁদের রাখাইন রাজ্যে ফিরিয়ে দেওয়া। আমি নিশ্চিত যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে দেখা করবেন তখন তিনি এই বিষয়টিও উত্থাপন করবেন যে এই প্রচেষ্টায় ভারত কীভাবে আমাদের সাহায্য করতে পারবে।”

মোমেন আরও বলেন, “২০১৭ সালের ২৫ অগাস্ট মায়ানমার থেকে ১ মিলিয়নেরও বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থী বাংলাদেশে পালিয়ে আসে। এই রোহিঙ্গা শরণার্থী সংকট সাম্প্রতিক ইতিহাসে মানুষের সবচেয়ে বড়, দ্রুততম আন্দোলনের মধ্যে অন্যতম। “আমরা আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের কাছে অনুরোধ করছি যে এই বিশাল জনসংখ্যা, দশ লাখের বেশি রোহিঙ্গাকে সামলে রাখার জন্য প্রয়োজনীয় মানবিক প্রচেষ্টার ক্ষেত্রে আমাদের সহায়তা করুন, পাশাপাশি আমাদের এই সমস্যার ক্ষেত্রে কিছু স্থায়ী সমাধানের দিকেও নজর দিতে হবে, আমাদের কাছে একমাত্র সম্ভাব্য সমাধান হচ্ছে রোহিঙ্গারা মায়ানমারের যেখান থেকে এসেছে সেই রাখাইন রাজ্যে তাঁদের ফিরিয়ে দেওয়া।”

রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসন নিয়ে ভারতের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা সম্পর্কে বলতে গিয়ে বাংলাদেশের বিদেশ সচিব বলেন, “আমরা মায়ানমার কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলছি, তবে আমি মনে করি অন্য দেশগুলো মায়ানমারের সঙ্গে সম্মত হলে কিছু সাহায্য করতে পারে। যেহেতু ভারত, মায়ানমার এবং বাংলাদেশ সবাই অভিন্ন প্রতিবেশী, আমরা অতীতেও অনুরোধ করেছি এবং ভারতকে প্রত্যাবাসনের ক্ষেত্রে আরও সক্রিয় ভূমিকা পালনের জন্য অনুরোধ অব্যাহত রাখব।”