টেট উত্তীর্ণ আরও ৫৪ জনকে চাকরির নির্দেশ বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের

0
62
Abhijit Gangapadhyay

রূপক চট্টোপাধ্যায়, কলকাতা: প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ ইস্যুতে ফের রাজ্যের স্নায়ুর চাপ বাড়ালেন কলকাতা হাই কোর্টের সিঙ্গলবেঞ্চের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় (Abhijit Gangapadhyay)৷ ছ’বছর ধরে বঞ্চিত টেট উত্তীর্ণ ২৩ জনকে ২৩ দিনের মধ্যে চাকরিতে নিয়োগ করার জন্য সোমবারই নির্দেশ দিয়েছিলেন তিনি৷ মঙ্গলবার ওই মামলায় টেট উর্ত্তীণ আরও ৫৪ জনকে আগামী ২৮ সেপ্টেম্বরের মধ্যে চাকরিতে নিয়োগ করার নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি৷ অন্যথায় আদালত অবমাননার মুখে পড়তে হতে পারে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদকে৷

আদালত সূত্রের খবর, ২০১৪ সালের প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষক নিয়োগের টেট পরীক্ষায় ৬টি প্রশ্ন ভুল ছিল। যার জেরে মামলাকারী সোহম রায়চৌধুরী-সহ ২৩ জন পরীক্ষার্থী উত্তীর্ণ হতে পারেননি৷ তাঁরা আদালতের দ্বারস্থ হন৷ টেটের ভুল প্রশ্নের দরুন এই মামলাকারীদের বাড়তি নম্বর দেওয়া যায় কি না, পর্ষদকে তা বিবেচনা করতে বলে হাই কোর্ট। ২০২১ সালের ডিসেম্বরে সোহমদের ছ’নম্বর দেয় পর্ষদ। অভিযোগ, আদালতের নির্দেশে টেট উত্তীর্ণ হলেও বছর পার হতে চলেছে৷ কিন্তু এখনও মেলেনি চাকরি৷ ওই মামলায় সোমবারই ২৩ জনকে ২৩ দিনের মধ্যে চাকরির নির্দেশ দিয়েছিলেন বিচারপতি৷

- Advertisement -

এদিন ফের ওই মামলার শুনানি ছিল বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের (Abhijit Gangapadhyay) এজলাসে৷ মামলাকারীদের আইনজীবী সুদীপ্ত দাশগুপ্ত বিচারপতিকে বলেন, ‘‘শুধু ওই ২৩ জন নয়, আরও ৫৪ জন রয়েছেন৷’’ প্রশ্ন তোলেন, ‘‘পরীক্ষা না দিয়ে কিংবা প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নন এমন অনেকে যদি চাকরি পান, তাহলে এরা পাশ করেও কেন এখনও চাকরি পাবে না?’’ এরপরই কড়া নির্দেশ দেন বিচারপতি৷ সাফ জানিয়ে দেন, ছ’বছর ধরে বঞ্চিত টেট উত্তীর্ণ ২৩ জনের সঙ্গে আরও ৫৪ জনকে আগামী ২৮ সেপ্টেম্বরের মধ্যে চাকরিতে নিয়োগ করতে হবে৷ বস্তুত, এই মুহূর্তে রাজ্যের কোনও শূন্যপদ নেই বলে সোমবারই আদালতকে জানিয়েছিল রাজ্য৷ এদিনের নির্দেশের পরে রাজ্যের স্নায়ুর চাপ আরও বাড়ল বলেই মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল৷

আরও পড়ুন: শুভেন্দুর কনভয়ে হামলা, রাজ্যের রিপোর্ট তলব হাই কোর্টের