এবার Safe Home নিয়ে রাজনৈতিক তরজা, বিজেপি কাউন্সিলরের সেফ হোম বন্ধ করার অভিযোগ

0
139

খাস ডেস্ক: করোনার বাড়বাড়ন্তের মাঝেই বিজেপি-তৃণমূল সংঘাত। তবে এবার সংঘাত হেম হোমকে ঘিরে। অভিযোগ উঠেছে, বিজেপি কাউন্সিলরের তৈরি করা সেফ হোম বন্ধের নির্দেশ পুরসভার। আর ঘটনায় রাজনৈতিক তরজা শুরু হয়েছে।

জানা গিয়েছে, ৫০ নম্বর ওয়ার্ডের বিজেপি কাউন্সিলর সজল ঘোষ সন্তোষ মিত্র স্কোয়্যারে সেফ হোম তৈরি করেছেন। তবে এরপর ওই হোম বন্ধ করার নির্দেশ দেয় পুরসভা। তারপরেই বিজেপি কাউন্সিলের পক্ষ থেকে অভিযোগ তোলা হয় যে, তিনি এই হোম তৈরি করেছেন বলেই তৃণমূল এটা কে বন্ধ করে দিয়েছে।

- Advertisement -

আরও পড়ুন-Arrest: উদ্ধার আগ্নেয়াস্ত্রসহ তিন রাউন্ড গুলি, পুলিশের জালে কুখ্যাত দুষ্কৃতী

তবে এবিষয়ে সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছে পুরসভা। এবিষয়ে মেয়র পারিষদ দেবাশিস কুমার জানিয়েছেন, পুরসভাকে না জানিয়েই পার্কে তৈরি হয়েছে ওই সেফ হোম। এই ভাবে অনুমতি না নিয়ে কিভাবে তৈরি হল? এই ঘটনায় পুরসভার পক্ষ থেকে ইতিমধ্যে মুচিপাড়া থানায় অভিযোগও দায়ের করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, দিন দিন বাড়ছে সংক্রমণ। যার জেরে ফের খোলা হচ্ছে সেফ হোমগুলি। আপাতত তিনটি হোম রয়েছে কলকাতায়। সেফ হোমের শয্যা সংখ্যা ৩৫০। সবচেয়ে বড় হল বাইপাস সংলগ্ন সেফ হোম। এখানে রয়েছে ২০০ টি শয্যা। আরেকটি সেফ হোম হয়েছে কসবার গীতাঞ্জলি স্টেডিয়ামে। গীতাঞ্জলি স্টেডিয়ামে ১০০ টি শয্যা রয়েছে। কলকাতার তৃতীয় সেফ হোমটি রয়েছে উত্তর কলকাতায়। সেখানে ৫০টি শয্যা রয়েছে।