খরচের চিন্তা না করেই ঘুরে আসতে পারেন এই ৫ টি জায়গায়, থাকা-খাওয়া সম্পূর্ণ ফ্রি

0
18

খাস ডেস্ক: ঘুরতে যেতে কে না ভালোবাসে। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত ঘুরে দেখার স্বপ্ন দেখেন অনেকেই। কিন্তু পূরণ করতে গেলেই বাধ সাধে খরচের চিন্তা। তাই শেষ পর্যন্ত ঠিকানা হয় ‘দীপুদা’ অর্থাৎ দার্জিলিং, দীঘা, পুরি। তবে আপনাকে যদি বলা হয় এমন কয়েকটি জায়গা আছে যেখানে যেতে হলে খরচের কোনও চিন্তা নেই এমনকি থাকা-খাওয়াও সম্পূর্ণ ফ্রি। কেমন হয়? হ্যা, এটা আসলেই সত্যি। দেশের ভিতরেই এমন ৫ টি জায়গার খোঁজ রইল।

মানিকরণ সাহিব গুরুদ্বার: ভ্রমণপ্রিয় মানুষদের তালিকায় উপরের দিকেই থাকে হিমাচল প্রদেশ। বহু দর্শনীয় স্থান রয়েছে দেশের এই রাজ্যে। এখানে এসে কোনও হোটেলে থাকতে গেলে পকেট থেকে মোটা টাকা খসবে। তবে পার্বতী নদীর কাছে অবস্থিত মানিকরণ সাহেব গুরুদ্বারে বিনামূল্যে থাকতে পারবেন আপনি। রয়েছে খাওয়ার ব্যবস্থাও।

গীতা ভবন: ভারতের ধর্মীয় এবং পবিত্র স্থান হিসেবে পরিচিত ঋষিকেশ। এখানে পবিত্র গঙ্গার তীরে অবস্থিত গীতা ভবনে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে থাকা যায়। খাবারের জন্যও কোনওরকম টাকা নেওয়া হয় না। এই আশ্রমে প্রায় এক হাজারটি কক্ষন রয়েছে। ফলে একসঙ্গে অনেকেই এখানে থাকতে পারে।

আনন্দাশ্রম: কেরল ভারতের অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র হিসেবে বিখ্যাত। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর এই রাজ্যকে ‘God’s Own Country’ ও বলা হয়ে থাকে। বছরের প্রায় সবসময়েই এখানে পর্যটকদের দেখা যায়। এখানে ঘুরতে এসে আনন্দাশ্রমে থাকতে পারেন। পাহাড় ও সবুজ পরিবেশের মাঝখানে অবস্থিত আনন্দাশ্রমে বিনামূল্যে পরিষেবা পাবেন।

তিব্বতি বৌদ্ধ মঠ: উত্তরপ্রদেশের ঐতিহাসিক সারনাথ মঠের কথা কারও অজানা নয়। অনেকেই এখানে ঘুরতে আসেন। জানেন কি, এই মঠে এক রাত থাকতে খরচ মাত্র ৫০ টাকা।

নিমাংপা মঠ: হিমাচল প্রদেশেই আরও একটি জায়গা রয়েছে যেখানে থাকতে গেলে খরচের চিন্তা করতে হবে না। রেওয়ালসার হ্রদের কাছে রেওয়ালসার হিমাচলি শহরে অবস্থিত এই মঠটিতে একদিনের খরচ পড়বে ২০০ টাকা। এর পাশেই রয়েছে একটি বাজার। যেখান থেকে বাহারি জিনিসপত্রও কিনতে পারবেন পর্যটকরা।