পুরীর আদলে রাস্তা ঝাঁটিয়ে খবরের শিরোনামে পুলিশের কর্তারা

0
20

তিমিরকান্তি পতি, বাঁকুড়া: ঝাড়ু হাতে রাস্তা ঝাঁটাচ্ছেন জেলা পুলিশের শীর্ষ কর্তারা৷ কে নেই সেই তালিকায়! অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গ্রামীণ) গণেশ বিশ্বাস৷ এসডিপিও কুতুবউদ্দিন খান এবং থানার আই.সি অতনু সাঁতরা। শুধু পুলিশ কর্তারাই নয়, ঝড়ু হাতে রাজপথ ঝাঁটাতে দেখা গেল স্থানীয় বিধায়ক তন্ময় ঘোষকেও৷ জুম্মাবারের সকালে এমনই ঘটনার সাক্ষী থাকলেন বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুরের বাসিন্দারা। তাঁরা বলছেন, প্রশাসনের সৌজন্যে ঐতিহ্যবাহী বিষ্ণুপুরের রথযাত্রায় নয়া পালক যোগ হল।

মল্লরাজাদের আমল থেকে উল্টোরথের শোভাযাত্রার সাক্ষী থেকেছেন এই শহরের মানুষ। এবার প্রশাসনের আন্তরিক সহযোগিতা ও বিষ্ণুপুরবাসীর উদ্যোগে প্রতীকি রথ নিয়ে শহরময় পরিক্রমা করল বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা। এদিন রামশঙ্কর মুক্ত মঞ্চে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে কাঠিনাচ, বাউল, ফকির, দরবেশ সাঁইয়ের গান আর নাচ সহযোগে রসিকগঞ্জ বাসস্ট্যাণ্ড, গোপালগঞ্জ, কৃষ্ণগঞ্জ, মাধবগঞ্জ ঘুরে শহরের বোলতলাতে এসে এই শোভাযাত্রা শেষ হয়। এদিনের এই শোভাযাত্রায় শহরবাসীর সঙ্গে পা মেলালেন ও পুরীর রথযাত্রার আদলে ঝাড়ু হাতে রাস্তা পরিস্কারের কাজে হাত লাগালেন স্থানীয় বিধায়ক তন্ময় ঘোষ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গ্রামীণ) গণেশ বিশ্বাস, এসডিপিও কুতুবউদ্দিন খান এবং থানার আইসি অতনু সাঁতরারা।

কলকাতা থেকে এসে এই অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়া একটি সংস্থার সদস্য মধুশ্রী চৌধুরী বলেন, ‘‘ভীষণ ভালো লাগছে। বাংলার এক গৌরবময় জনপদে এসে নিজেদের ধন্য মনে করছি। সংস্কৃতি চর্চার সঙ্গে যুক্ত থাকার সুবাদে সংস্কৃতির এই শহরে এসে অনুষ্ঠানে অংশ নিতে পেরে খুব ভাল লাগছে।’’ একই সঙ্গে বাউল, ফকির, দরবেশ সাঁইয়ের গানের পাশাপাশি রবীন্দ্রনাথের গানকে সঙ্গে রেখেই তাঁরা অনুষ্ঠান সাজিয়েছেন বলে তিনি জানান।

আরও পড়ুন: জাঁকজমকে ফাঁক দিতে নারাজ ভক্তরা, ফল দিয়ে সেজে উঠছে জগন্নাথের রথ