পুলিশি হেফাজতে তরুণীর মৃত্যুর প্রতিবাদে ফের রণক্ষেত্র ইরান, থানায় আগুন লাগিয়ে বিক্ষোভ

0
14

খাস ডেস্ক: পুলিশি হেফাজতে থাকাকালীন ২২ বছরের তরুণীর মৃত্যুর প্রতিবাদে গত কয়েকদিন ধরে উত্তাল ইরান। এই ঘটনার পর ইরানি মহিলারা চুল কেটে, হিজাব উড়িয়ে প্রতিবাদ দেখায়। সেই বিক্ষোভের আজ ছয় দিন। এখনও কমেনি আমজনতার ক্ষোভ। যার স্পষ্ট ছবি দেখা গেল বৃহস্পতিবার।

আরও পড়ুন: ভালোবাসার ‘প্রতিদানে’ অর্পিতাকে ভোটে প্রার্থী করতে চেয়েছিলেন Partha Chatterjee, সামনে এল বিস্ফোরক তথ্য

- Advertisement -

এদিন তেহরান এবং ইরানের অন্যান্য শহরগুলিতে বিক্ষোভকারীরা থানায় আগুন লাগিয়ে প্রতিবাদ কর্মসূচী শুরু করে। ফের উত্তপ্ত হয়ে ইরানের পরিস্থিতি।

প্রসঙ্গত, গত সোমবার প্রতিবাদ মিছিলে নিরাপত্তারক্ষীরা গুলি চালায়। গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হয়েছে একাধিক। এরপর বিক্ষোভকারীদের ক্ষোভের মাত্রা আরও বাড়তে থাকে।

আরও পড়ুন: সৌজন্যতার বিনিময়ে ‘Thank You’ না বলায় এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে খুন, মর্মান্তিক ভিডিও পুলিশের হাতে

উল্লেখ্য, হিজাব সঠিকভাবে না পড়ার জন্য পশ্চিম ইরানের সাকেজ শহরের বাসিন্দা ২২ বছরের মাহসা আমিনিকে আটক করে ‘নীতি পুলিশ’। হেফাজতেই মৃত্যু হয় যুবতীর। প্রত্যক্ষদর্শীদের দাবি, ‘হেফাজতে নিয়ে মাহসার উপর অত্যাচার চালায় পুলিশ আধিকারিকরা।’ যদিও পুলিশের পাল্টা দাবি, ‘হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে মাহসার।’ এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই ক্ষুব্ধ হয়ে প্রতিবাদ দেখাতে রাস্তায় নেমে পড়েন বহু মহিলা। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয় বিক্ষোভের ভিডিও।