পাকিস্তানের নয়া সেনাপ্রধান হিসাবে নিযুক্ত হলেন দেশের প্রধান গুপ্তচর

0
27
asim munir

ইসলামাবাদ: কয়েকমাস আগেই পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী বদল হয়েছেন। তারপরে পাকিস্তানের সুরক্ষার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণে পদে এল বদল। পাকিস্তানের পরবর্তী সেনাপ্রধান কে হবেন তা নিয়ে অনেক গণ্ডগোল ও বিতর্কের পর  বৃহস্পতিবার লেফটেন্যান্ট-জেনারেল অসীম মুনিরকে (asim munir) সেনাবাহিনীর প্রধান হিসাবে মনোনীত করেছে।

মুনির, যিনি পাকিস্তানের প্রধান গুপ্তচরও ছিলেন। তিনি বিদায়ী পাক সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়ার কাছ থেকে দায়িত্ব নেবেন। জেনারেল কামার জাভেদ ছয় বছরের মেয়াদের পরে চলতি মাসের শেষের দিকে অবসর নেবেন বলেই পাক প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে। অসীম মুনিরের নিয়োগটি সামরিক বাহিনী এবং প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের মধ্যে বিরোধের সঙ্গে মিলে যায় কারণ এই বছরের শুরুতে ইমরান খান ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার জন্য পাক সেনাবাহিনীকে দায়ী করেছিলেন। ২৯ নভেম্বর দায়িত্ব গ্রহণ করবেন।

- Advertisement -

মুনীরকে (asim munir) নতুন প্রধান হিসেবে ঘোষণা করার পর প্রতিরক্ষামন্ত্রী খাজা আসিফ সাংবাদিকদের বলেন, “এটি যোগ্যতা, আইন এবং সংবিধান অনুযায়ী করা হয়েছে।” নতুন সেনাপ্রধান নিয়োগের আগে বুধবার, বিদায়ী সেনাপ্রধান বাজওয়া বলেছিলেন যে ভবিষ্যতে জাতীয় রাজনীতিতে সেনাবাহিনীর কোনও ভূমিকা থাকবে না। সেই সঙ্গেই প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের দাবিকে “ভুয়া এবং মিথ্যা” হিসাবে দাবি করেছেন। এর পিছনে মার্কিন-সমর্থিত ষড়যন্ত্র রয়েছে বলেই উল্লেখ করেছেন। লেফটেন্যান্ট জেনারেল অসীম মুনীর বর্তমানে জিএইচকিউতে কোয়ার্টার মাস্টার জেনারেল। তিনি জেনারেল বাজওয়ার ঘনিষ্ঠ বলেও জানা  গিয়েছে। একজন ব্রিগেডিয়ার হিসেবে, তিনি ফোর্স কমান্ড নর্দার্ন এরিয়াস (FCNA) এর একজন কমান্ডার ছিলেন, যে সময়ে বাজওয়া এক্স কর্পসের কমান্ডার ছিলেন।  মুনীর সামরিক গোয়েন্দা বিভাগের প্রধান এবং পাকিস্তান সেনাবাহিনীতে একটি বিরল সংমিশ্রণ আইএসআই-এর প্রধান হিসাবে উভয়ই দায়িত্ব পালন করেছেন। ২০১৭ সালের প্রথম দিকে  তাঁকে পাকিস্তানের সামরিক গোয়েন্দা সংস্থার (ISI) ডিরেক্টর জেনারেল করা হয় এবং ২১ মাস এই পদে দায়িত্ব পালন করেন।

https://play.google.com/store/apps/details?id=app.aartsspl.khaskhobor