Khaleda-Zia: অসুস্থ মাকে দেখতে বাংলাদেশে ফেরার প্রস্তুতি নিচ্ছেন পলাতক তারেক রহমান

0
105

খাস খবর ডেস্ক: অসুস্থ বিএনপির চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াকে দেখতে দেশে ফেরার প্রস্তুতি নিচ্ছেন তাঁরই বড়ছেলে তারেক রহমান। এই তথ্যটি নিশ্চিত করেছে যুক্তরাজ্য বিএনপির সভাপতি। যদিও দেশে ফিরলেই তাকে গ্রেফতার করা হবে।

আরও পড়ুন-উত্তপ্ত ত্রিপুরার আঁচ কলকাতাতেও, তৃণমূলের উপর ‘হামলা’র প্রতিবাদে বিজেপির রাজ্য দফতরে বিক্ষোভ

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে যে কোনও মূল্যে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানোর দাবি আদায়ে এক দফা আন্দোলন করেছে বিএনপি। তবে খালেদা জিয়ার শারীরিক যে অবস্থা, তাতে যে কোনও সময় যে কোনও কিছু ঘটতে পারে। এই পরিস্থিতিতে এপ্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানিয়েছেন, চিকিৎসার জন্য খালেদা জিয়াকে বিদেশে যেতে দেওয়ার অনুমতি প্রসঙ্গে তার করণীয় যা করার তিনি করেছেন। বাকিটা আইনগত।

এমন পরিস্থিতিতেই গুঞ্জন উঠেছিল, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান এবং খালেদা জিয়ার বড় ছেলে তারেক রহমান দেশে আসার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। সাজাপ্রাপ্ত তারেক পলাতক অবস্থায় এখন লন্ডনে বসবাস করেছন। যদিও এবিষয়ে ব্রিটিশ আইনজীবীরা জানিয়েছেন, বাংলাদেশে পা দিলেই গ্রেফতার হবেন বিএনপির দ্বিতীয় সর্বোচ্চ নেতা তারেক রহমান।

আরও পড়ুন-Railway Recruitment: প্রায় ২ হাজার কর্মী নিয়োগ রেলে, কিভাবে করবেন আবেদন, জানুন বিস্তারিত

তাহলে কি এবার প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের পর অসুস্থ মাকে দেখতে বাংলাদেশে ফিরছেন লন্ডন পলাতক প্রবাসী তারেক রহমান? পাশাপাশি দেশে ফিরলে কোনও রকম আইনি বাধার সম্মুখীন হতে হবে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপারসনকে? এবিষয়ে ব্রিটিশ মানবাধিকার আইনজীবীরা ব্যারিস্টার মনোয়ার হোসেন জানান, তারেক রহমান দেশে ফিরলেই গ্রেফতার হবে। তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ান ছাড়াও দণ্ডাদেশ রয়েছে। ফলে বাংলাদেশে পা দিলেই গ্রেফতার হবেন তিনি।

তবে খালেদার বিদেশে চিকিৎসার ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর নির্বাহী ক্ষমতার পাশাপাশি হাইকোর্টে রিট করলে আদালতের এই ব্যাপারে সিদ্ধান্ত দেওয়ার এখতিয়ার রয়েছে বলে জানান ব্রিটিশ মানবাধিকার আইনজীবীরা ব্যারিস্টার মনোয়ার হোসেন। যদিও তারেক রহমানের হালনাগাদ বাংলাদেশি পাসপোর্ট না থাকায় তাকে হাইকমিশনে নো ভিসা রিকোয়ার্ড সিলমোহরের জন্য আবেদন করতে হবে। কিন্তু এ ব্যাপারে তারেক রহমানের পক্ষ থেকে লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনে কোনও আবেদন করা হয়নি।