অভিষেককে কেন বারে বারে ডাকছে সিবিআই! গোপন তথ্য ফাঁস করলেন মীনাক্ষী

0
77

খাস প্রতিবেদন:  ‘‘আমাদের বর্তমান ও ভবিষ্যৎ কে যারা নষ্ট করেছে, তাদের ইডি, সিবিআই এর প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে। সিবিআই ভালো কাজে ডাকে না, নিশ্চয় চুরি দুর্নীতির খোঁজ পেয়েছে তাই ডেকেছে।’’ তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সিবিআই এর ডাক নিয়ে শনিবার জলপাইগুড়ির ডিবিসি রোডে সিপিএমের জেলা পার্টি অফিসে বললেন DYFI এর রাজ্য সম্পাদিকা মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়৷

আরও পড়ুন: বারবার চেষ্টা করেও রেহাই পাওয়া গেল না! কী হবে অভিষেকের? জানালেন বিজেপির সুভাষ

- Advertisement -

একই সঙ্গে মীনাক্ষী বলেন, ‘‘আমাদের এখনও আইন আদালতের প্রতি বিশ্বাস আছে। অভিষেকের বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম পেয়েছে হয়তো চুরি দুর্নীতিতে। তাই আজ ডেকেছে।’’ বস্তুত, কয়লা পাচার কাণ্ডে আদালতের রক্ষাকবচ না থাকায় এদিন শেষ পর্যন্ত কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার মুখোমুখি হতে অভিষেক বাধ্য হয়েছেন বলেই মনে করেন মীনাক্ষী৷ তাঁর কথায়, ‘‘ওরা মুখে অনেক বড বড় কথা বলে৷ কিন্তু তদন্তকারী সংস্থা ডাকলেই তখন কোর্টের দুয়ারে দৌড়ায়৷ আসলে চুরি যদি না করে থাকে তাহলে ভয় পাওয়ার কি আছে! উপায় না থাকায় উনি আজ বাধ্য হয়ে সিবিআই দপ্তরে হাজিরা দিতে গিয়েছেন৷’’

আরও পড়ুন: দক্ষ শিকারি , সাতাঁরে নাম-ডাক, তবুও এ যাত্রায় ব্যর্থ বাঘ মামা

বস্তুত, সিবিআইয়ের জরুরি তলব পেয়ে শুক্রবারই জেলায় জেলায় নবজোয়ারের কর্মসূচি ছেড়ে বাঁকুড়া থেকে কলকাতায় ফিরেছেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়৷ শাসকের তরফে ইতিমধ্যে প্রতিহিংসার অভিযোগ আনা হয়েছে৷ কেন্দ্রীয় এজেন্সিকে বিজেপি নিজেদের দলের স্বার্থে ব্যবহার করছে বলে টুইটে তোপ দেগেছেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। একই সঙ্গে দিয়েছেন হুঁশিয়ারি, ‘‘অভিষেককে আটকে নবজোয়ার কর্মসূচি বন্ধ করা যাবে না। অভিষেককে যদি ওরা আটকে রাখে তবে জেলায় জেলায় আমি যাব।’’ মীনাক্ষীর মতে, অপেক্ষা করুন৷ অনেক কিছু অপেক্ষা করে আছে৷ পাপ নিজের বাপকেও ছাড়ে না!

আরও পড়ুন: ফের নোট বাতিল! আবার কি কালো দিন ফিরছে? কি বললো আরবিআই