উদ্ধার লক্ষাধিক টাকার মাদক, ২ মহিলা সহ তিন গ্রেফতার

0
19

নিজস্ব সংবাদদাতা, মালদহ: প্রকাশ্যে রমরমিয়ে চলছিল মাদক পাচার৷ গ্রামবাসীদের সাবধানিতেও কোনো হুঁশ ফেরেনি পরিবারের৷ পুলিশের দ্বারস্থ হয় স্থানীয়রা৷ অভিযোগের ভিত্তিতে দুই মহিলা সহ তিন জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ৷ ঘটনাটি মালদহের৷

রতুয়া থানার পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃতদের নাম মহম্মদ ইসমাইল, মহম্মদ ইসমাইলের স্ত্রী সাজেরা বিবি, এবং তার পুত্রবধূ সোনাভান(রুকসানা)৷ বাড়ি রতুয়া থানা এলাকার ভাদো বাজার পাড়া গ্রামে৷ ধৃতদের কাছ থেকে প্রায় তিন লক্ষ টাকার মাদক, এক লক্ষ চল্লিশ হাজার দুশো নব্বোই টাকা নগদ সহ অন্যান্য নেশার সামগ্রী উদ্ধার করেছে পুলিশ৷

- Advertisement -

স্থানীয়দের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরে মহম্মদ ইসমাইলের দুই ছেলে সামিরুল এবং এজাবুল মাদক কারবারের সঙ্গে যুক্ত। গ্রামবাসীরা তাদেরকে বহুবার সাবধান করে। কিন্তু তারা গ্রামবাসীদের কথায় কোনো কর্ণপাত করেনি। তাদের মাদক কারবারের জন্য পরিবেশ নষ্ট হচ্ছিল। বিশেষ করে নেশায় আসক্ত হয়ে পড়ছিল যুবসমাজ।

রবিবার সন্ধ্যায় তাদের বাড়িতে চড়াও হয় গ্রামবাসীরা৷ ভাঙচুর চালানো হয় তাদের বাড়ি৷ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় রতুয়া থানার পুলিশ৷ পরিস্থিতি সামাল দেয়। সোমবার সকালে রতুয়া থানার আইসি সঞ্জয় দত্তের নেতৃত্বে অভিযুক্তদের বাড়িতে শুরু হয় তল্লাশি অভিযান। অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করা হয় মাদক সহ প্রায় লক্ষাধিক টাকা৷ সেই সঙ্গে গ্রেফতার করে তিন জনকে৷

রতুয়া থানার আইসি সঞ্জয় দত্ত জানিয়েছেন, মাদক পাচারকারীর মূল পান্ডা মহম্মদ ইসমাইলের দুই ছেলে মহম্মদ এজাবুল হক ও সামিরুল হক। বেশ কিছুদিন আগে আগ্নেয়াস্ত্রসহ সামিরুল হককে গ্রেফতার করে রতুয়া থানার পুলিশ৷ এখন তারা জেলবন্দি। আর এক মূল অভিযুক্ত এজাবুল হক পলাতক।