ফুচকা খেয়ে অসুস্থ একই গ্রামের প্রায় ৭০ জন

0
69

বসিরহাট: ফুচকার নাম শুনবেন অথচ জিভে জল আসবে না, তাও কি হয়? স্ট্রিটফুড হিসেবে ফুচকা এতটাই জনপ্রিয় যে, নানা জায়গায় তার নানা অবতার। কোথাও গোলগাপ্পা, কোথাও পানিপুরি। ফুচকার স্বাদে মজে থাকে আট থেকে আশি সকলেই। এবার সেই ফুচকা খেয়েই ঘটল বিপত্তি। স্বাদের লোভনীয় ফুচকা খেয়ে অসুস্থ‌ প্রায় ৭০ জন। তাদের মধ্যে শিশু থেকে মহিলা, পুরুষ সকলেই রয়েছেন। যাদের মধ্যে ১০ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনার বসিরহাট মহকুমা হাড়োয়া থানার সোনাপুকুর শংকরপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের নোয়াপাড়া গ্রামে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

আরও পড়ুনঃ আইন মেনে তল্লাশি চালানো হয়নি আনিস খানের বাড়িতে, সামনে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য

জানা গিয়েছে, প্রায় প্রতি রবিবার ও সোমবার এই দুইদিন গ্রামে এক ফুচকাওয়ালা আসতেন। তার থেকে ফুচকা কিনে খান গ্রামের পুরুষ, মহিলা এবং শিশুরা। সেই ফুচকা খাওয়ার পরই দুদিন ধরে অল্প অল্প অসুস্থ হচ্ছিলেন গ্রামের অনেকে। সোমবার ও মঙ্গলবার তাদের গায়ের তাপমাত্রা বৃদ্ধি পায়, সঙ্গে মাথার যন্ত্রণা, বমি, পেট খারাপ। সোমবার রাত থেকে হাড়োয়া গ্রামীণ হাসপাতাল ১০ জনের বেশি চিকিত্‍সাধীন রয়েছেন। এছাড়াও গ্রাম এবং অন্যান্য জায়গা থেকেও চিকিত্‍সা করাচ্ছেন বাকিরা। সব মিলিয়ে প্রায় ৬০ থেকে ৭০ জন অসুস্থ।

আরও পড়ুন: মেদিনীপুরে সঙ্ঘপ্রধান, আইসিকে মমতা বললেন, ‘দেখবেন, দাঙ্গা না বাধায়’

হাড়োয়া গ্রামীণ হাসপাতালে কর্মরত চিকিত্‍সক সৌমিত্র পাইক জানিয়েছেন, আপাতত ১০ জন চিকিত্‍সাধীন রয়েছেন হাড়োয়া গ্রামীণ হাসপাতালে। সকাল থেকে আউটডোরে অনেকেই চিকিত্‍সা করাতে আসছেন। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ। ফুচকা খাওয়ার পর অসুস্থ হয়ে পড়ল না অন্য কোনও খাবার থেকে খাদ্যে বিষক্রিয়া খতিয়ে দেখছে হাড়োয়া থানার পুলিশ ও স্বাস্থ্য দফতর। ইতিমধ্যেই গ্রামের মধ্যে একটি মেডিকেল ক্যাম্পও করা হয়েছে। যাতে অসুস্থদের বাড়িতেই চিকিত্‍সা করা যায়।