পুলিশের তাড়া খেয়ে জলে ঝাঁপ, মৃত্যু যুবকের

0
41

নিজস্ব সংবাদদাতা, আগরপাড়া: রক্ষই যখন ভক্ষক৷ প্রাণে বাঁচানোর জায়গায় মেরে ফেলার অভিযোগ উঠল৷ তাড়া খেয়ে জলে ঝাঁপ দিয়ে মৃত্যুর অভিযোগ উঠল পুলিশের বিরুদ্ধে৷ ঘটনাটি ঘটেছে আগরপাড়া তারাপুকুর এলাকায়৷ ঘটনায় অভিযুক্ত পুলিশদের শাস্তির দাবি করেছে মৃতের পরিবার৷ মৃতের নাম বিশাল দাস (২৬)৷

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বিশাল দাস বন্ধুদের সঙ্গে আগরপাড়া উষুমপুর বটতলা মাঠ সংলগ্ন একটি জায়গায় জুয়া খেলছিল৷ সেই সময় গোপন সূত্রে খবর পেয়ে ঘোলা থানার পুলিশ অভিযান চালায়৷ সেই সময় জুয়ার আসর থেকে পুলিশের তাড়া খেয়ে বাঁচার জন্য মাঠ সংলগ্ন একটি পুকুরে ঝাঁপ দেয় বিশাল৷

তারপর সেখান থেকে পুলিশ চলে যায়৷ বাড়ির লোকজন বিশাল বাড়িতে না যাওয়ায় তার খোঁজ শুরু করে৷ তারপর মাঠ সংলগ্ন পুকুর থেকে বিশাল দাসের মৃতদেহ দেখতে পায় স্থানীয় বাসিন্দারা৷ ঘোলা থানায় খবর দেওয়া হলে পুলিশ মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়ে দেয়৷

স্থানীয় বাসিন্দা সহ বাড়ির লোকজনের অভিযোগ, পুলিশ তাড়া করার ফলে বিশাল দাস নিজেকে বাঁচানোর জন্য পুকুরে ঝাঁপ দিয়েছিল৷ পুলিশ যখন দেখল বিশাল পুকুরে ঝাঁপ দিয়েছে তখন ঘোলা থানার পুলিশ কেন তাঁকে বাঁচালো না? কেন তাকে উদ্ধার না করে চলে গেল পুলিশ? একাধিক প্রশ্ন তুলছে পুলিশের বিরুদ্ধে৷

সই সঙ্গে ঘটনায় পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলে সবর হয়েছে স্থানীয় বাসিন্দা সহ বিশালের পরিবার৷ পাশাপাশি ঘটনায় জড়িত দোষীদের উপযুক্ত শাস্তি দাবি জানিয়েছেন বিশালের পরিবারের৷ বিশালের এই মৃত্যু ঘিরে যথেষ্টই রহস্য দানা বাঁধছে৷ এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত পুলিশের কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি৷