বিজেপি করার কারণেই পরিকল্পিতভাবে খুন করা হয়েছে, বিস্ফোরক বিজেপি সাংসদ

0
26

নদিয়া: বিজেপি করার কারণেই পরিকল্পিতভাবে খুন করা হয়েছে। তৃণমূল এবং প্রশাসন নোংরা রাজনীতি করছে গোটা রাজ্যে। নবদ্বীপে যুবক মৃত্যু ঘটনায় তার পরিবারের সঙ্গে দেখা করে শাসকদলকে আক্রমণ করলেন বিজেপি সাংসদ জগন্নাথ সরকার। মঙ্গলবার নবদ্বীপ ব্লকের স্বরূপগঞ্জ সুকান্ত পল্লীতে এসে পৌঁছান সাংসদ। এরপর বাড়িতে গিয়ে মৃত যুবক অমিত দেবনাথের পরিবারের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন তিনি।

আরও পড়ুন- ভুল রাজ্য থেকে যাত্রা শুরু করেছে কংগ্রেস, দাবি প্রশান্ত কিশোরের

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি মোবাইল ফোন থেকে রং নাম্বারে ফোন চলে যাওয়াকে কেন্দ্র করে সুকান্ত পল্লীর বাসিন্দা অমিত দেবনাথকে স্থানীয় তৃণমূল পার্টি অফিসে একাধিকবার ডেকে নিয়ে এসে বেধড়ক মারধর করার অভিযোগ ওঠে ওই এলাকার তৃণমূল নেতা সঞ্জীব সমাদ্দারের বিরুদ্ধে। পাশাপাশি ওই যুবকের মা সহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যদেরও মারধর করার অভিযোগ ওঠে শাসকদলের ওই নেতা ও তাঁর অনুগামীদের বিরুদ্ধে। এই ঘটনার পর অপমানে মানসিক অবসাদে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হয় অমিত দেবনাথ।

https://play.google.com/store/apps/details?id=app.aartsspl.khaskhobor

এরপর ধৈর্যের বাঁধ ভেঙে যায় স্থানীয় গ্রামবাসীদের এবং অভিযুক্ত সঞ্জীব সমাদ্দার সহ দোষীদের অবিলম্বে গ্রেফতারের দাবিতে একাধিকবার পথ অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখায় এলাকাবাসীরা। এলাকাবাসীদের বিক্ষোভের মুখে নতি স্বীকার করে অভিযুক্ত সঞ্জীব সমাদ্দারকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠায় নবদ্বীপ থানার পুলিশ।

আরও পড়ুন- শিক্ষক বদলির প্রতিবাদে রেল অবরোধে শামিল স্কুল পড়ুয়ারা

মূলত তারই পরিপ্রেক্ষিতে বাকি দোষীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে এই দিন দুপুরে মৃত যুবকের বাড়িতে আসেন রানাঘাট লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ জগন্নাথ সরকার। পাশাপাশি তৃণমূল নেতৃত্বের প্রশ্রয়ে শাসক দলের দুষ্কৃতীরা নিরীহ জনগণের উপর অত্যাচার চালাচ্ছে বলেও এই দিন দাবি করেন সাংসদ। এর পাশাপাশি পুলিশ প্রশাসনের ভূমিকা নিয়েও এই দিন তীব্র কটাক্ষের সুর শোনা যায় সংসদের গলায়। জগন্নাথ সরকার ছাড়াও এই দিন মৃত যুবক আমি দেবনাথের বাড়িতে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিজেপির অন্যান্য নেতাকর্মীরা।