‘হয়তো বরফ গলল’, মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে বিরোধী দলনেতার প্রবেশ নিয়ে মন্তব্য Sujan Chakraborty’র

0
37
Mamata Suvendu

কলকাতা: মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) ঘরে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর (Suvendu Adhikari) প্রবেশ, এই ঘটনায় শোরগোল পড়েছে রাজনৈতিক মহলে। শুরু হয়েছে নানা জল্পনা। শুক্রবার দমদম নাগেরবাজারের দলীয় কার্যালয়ে সাংবাদিক বৈঠকে এ নিয়ে মন্তব্য করলেন সিপিএমের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সুজন চক্রবর্তী (Sujan Chakraborty)।

আরও পড়ুন: মমতার মন্ত্রিসভাকে পার্টি করে তৃণমূলের প্রতীক কেড়ে নেওয়ার হুঁশিয়ারি বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের

- Advertisement -

সিপিএম নেতা বলেন, ‘শুভেন্দু অধিকারী আজকের মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে গিয়েছেন। কাকের ঘরে কোকিল এল না কোকিলের ঘরে কাক। দুইয়ে মিলেমিশে এক। আমরা বরাবরই বলেছিলাম। শুভেন্দু অধিকারী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘনিষ্ঠ। শুভেন্দু অধিকারী আজ গিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে, কথা হয়েছে, হয়তো বরফ গলল। মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে তিনি আরও বলেন, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আজ বলছেন আমি শিশির দাকে সম্মান করি। কিন্তু তাঁর ভাইপো যে কাঁথিতে গিয়ে সেই শিশির দাকে বলেছিল তোর বাপকে বল আমি এসেছি। সেইসময় মুখ্যমন্ত্রী কি বলেছিলেন আমি এই ঘটনার নিন্দা করছি।’ তবে শুভেন্দু অধিকারীর মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে যাওয়ার বিষয়টিকে অত্যন্ত স্বাভাবিকভাবেই দেখছেন সুজন চক্রবর্তী (Sujan Chakraborty)।

আরও পড়ুন: Sraddha Murder Case: ‘ভুয়ো’ মুসলিম সেজে Aftab-কে সমর্থন, গ্রেফতার উত্তরপ্রদেশের যুবক

রাজ্য সরকারকে নিশানায় এনে সিপিএম (CPIM) নেতা বলেন, ‘প্রত্যেক ক্ষেত্রেই পশ্চিমবাংলায় আইনের কোনও শাসন নেই। মানুষের জীবনের নিরাপত্তা নেই, কাজের সুযোগ নেই। মুখ্যমন্ত্রী যেদিন যেমন খুশি ভাষণ দিচ্ছেন আর সেইমতই সরকার চলছে। সংবিধান না মেনে ক্রমশ দূরে সরতে থাকলে তার যৌক্তিকতা কোথায়? পশ্চিমবঙ্গে যা চলছে তা দেখে গোটা ভারতবর্ষ স্থগিত। শিক্ষা দফতরের সবাই জেলে। অবৈধভাবে যারা চাকরি পেয়েছিল তাঁদের বরখাস্ত করার আদালতের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে ভাষণ দেয় মুখ্যমন্ত্রী। ব্রাত্য বসুকে অবিলম্বে আদালতে ডাকতে হবে এটা পরিকল্পিত অপরাধ।’