লালগড়ের পথে শুভেন্দুকে বাধা, আদালতের প্রশ্নের মুখে পুলিশ কর্তারা

0
12

কলকাতা ও লালগড়: রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীকে কেন লালগড়ের নেতাইয়ে যেতে বাধা দেওয়া হয়েছিল, তা জানতে চেয়ে এবার পুলিশের শীর্ষ কর্তাদের শো-কজ করলেন বিচারপতি৷ মামলার শুনানিতে এদিন এমনই নির্দেশ জারি করেছেন কলকাতা হাই কোর্টের বিচারপতি সব্যসাচী ভট্টাচার্য৷

আদালত সূত্রের খবর, এই মামলায় এদিন রাজ্য পুলিশের ডিজি, ঝাড়গ্রামের পুলিশ সুপার ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের বিরুদ্ধে রুল জারি করেন বিচারপতি৷ আগামী ৩০ জুলাইয়ের মধ্যে তাদের হাজির হয়ে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। স্বভাবতই, আদালতের এহেন নির্দেশে উচ্ছ্বসিত গেরুয়া শিবির৷ তাঁরা বলছেন, সেদিন শুভেন্দুকে বাধা দিয়ে রাজ্য পুলিশ যে ঠিক করেননি তা বিচারপতির পর্যবেক্ষণ থেকেই স্পষ্ট৷ যদিও এই বিষয়ে এখনও শুভেন্দু বা রাজ্য পুলিশের শীর্ষ কর্তাদের কারও কোনও প্রতিক্রিয়া এখনও পাওয়া যায়নি৷

বস্তুত, পালা বদলের ঠিক মুখে ২০১১ সালের ৭ জানুয়ারি লালগড়ের নেতাই গ্রামে নিরীহ গ্রামবাসীদের ওপর সশস্ত্র হামলার অভিযোগ উঠেছিল তৎকালীন শাসক সিপিএমের বিরুদ্ধে৷ তারপর থেকে প্রতিবছর ৭ জানুয়ারি লালগড়ের নেতাই গ্রামের শহিদ দিবস পালন করা হয়৷ দল বদলালেও শুভেন্দু সেই রীতি বজায় রেখেছিলেন৷ কিন্তু চলতি বছরের ৮ জানুয়ারি নেতাই যাওয়ার পথে শালবনির ভীমপুরে শুভেন্দুর পথ আটকায় জেলা পুলিশ৷

ওই ঘটনায় রাজ্য পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলে মামলা করা হয়েছিল৷ তারই শুনানিতে এদিন বিচারপতি রাজ্য পুলিশের ডিজি, ঝাড়গ্রামের পুলিশ সুপার ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের বিরুদ্ধে রুল জারি করেন৷ আগামী ৩০ জুলাইয়ের মধ্যে তাদের হাজির হয়ে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: Bogatui genocide: আসল রহস্য ফাঁস করার হুমকি দিলেন তৃণমূলের বহিষ্কৃত আনারুল