“আর মাথা নত করে থাকা যাবে না” প্রতিরোধের বার্তা মানিক সরকারের

0
64

আগরতলা : ত্রিপুরার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিরোধী দলনেতা মানিক সরকার তাঁর নির্বাচনী কেন্দ্র ধনপুরে এক  জনসভায় সোমবার বলেন, “ আর মাথা নত করে থাকা যাবে না, আজকে বিজেপির আক্রমণের বিরুদ্ধে যারা প্রতিরোধ করলেন, তারাই আজকের প্রকৃত হিরো হিরোইন। আজকের ঘটনা সমস্ত ত্রিপুরার কাছে এক নজির সৃষ্টি করেছে”।   

আরও পড়ুন : নতুন করে জামিনের আবেদন উমর খালিদের

সোমবার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার জনসভাস্থলে যাওয়ার পথে বিজেপি কর্মীরা তাঁর পথ আটকাবার চেষ্টা করে, এমনকি পুলিশের পক্ষ থেকেও সিপিএম পলিটব্যুরো সদস্যকে বাঁধা দেওয়ার চেষ্টা হয় এমনটাই অভিযোগ সিপিএমের। এই রকম পরিস্থিতিতে সিপিএম কর্মী সমর্থকরা বিজেপির কর্মী সমর্থকদের দিকে তেড়ে যান, এরফলে সংঘর্ষের পরিস্থিতি তৈরি হয়। শেষপর্যন্ত সিপিএম কর্মী সমর্থকরা তাদের নেতাকে নিয়ে মিছিল করে সভাস্থলে পৌঁছয়। 

আরও পড়ুন : রাহুলকে কংগ্রেসের সভাপতি করার প্রস্তাব পাস 

ধনপুরের এই ঘটনার পর থেকেই সারা রাজ্য জুড়ে মানিক সরকারের কনভয়ে হামলার প্রতিবাদ জানিয়ে সিপিএম বিক্ষোভে নামে। সিপিএম রাজ্য কমিটির বিবৃতিতে স্পষ্ট ভাবে বলা হয়েছে, যে “এর আগেও একই জায়গায় মানিক সরকারকে আটকেছিল বিজেপি, সেই সময় তিনি ফিরে আসেন, কিন্তু আজ সব বাঁধা পেরিয়েই মানিক সরকার ধনপুরে পৌঁছেছেন, এর জন্য ধনপুরের মানুষকে অভিনন্দন।”

আরও পড়ুন : দেশবিরোধী স্লোগান দিলেও এফআইআর নয়, মত মেহবুবার

২০১৮ সালের বিধানসভা নির্বাচনে বামেদের পরাজয়ের পর বারবারই বিজেপির বিরুদ্ধে তাদের উপর অত্যাচারের অভিযোগ তুলেছে বামেরা, সেই জায়গায় সোমবারের প্রতিরোধী ধনপুর যেন এক অন্য বার্তা দিল বলছেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা। অনেকেই বলছেন পশ্চিমবঙ্গে বামেরা লড়াই, প্রতিরোধ না করায় তারা বিরোধী পরিসর হারিয়েছে, সেই দেখে নিশ্চয়ই শিক্ষা নিচ্ছে ত্রিপুরা সিপিএম, তাই তারা প্রতিরোধের ডাক দিচ্ছে বলছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।