সায়নীতেই আস্থা রাখলেন নেত্রী, তবু ভেসে আসছে পরিবারতন্ত্রের টিপ্পনি

0
31
Sayani Ghosh

কলকাতা: বছর ঘুরলেই রাজ্যের ত্রিস্তর পঞ্চায়েত নির্বাচন৷ এমন আবহে দলের যুব সংগঠনকে আরও শক্তিশালী করে তুলতে বুধবার সর্বভারতীয় তৃণমূল যুব কংগ্রেসের নয়া কমিটি ঘোষণা করলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন দলের যুব সংগঠনের ৪৭ জন সদস্যকে নিয়ে রাজ্য কমিটি গঠন করেছেন দলনেত্রী। দলীয় সূত্রের খবর, সংগঠনের রাজ্য সভাপতি পদে অপরিবর্তিত থাকছেন অভিনেত্রী থেকে নেত্রীতে উত্তীর্ণ হওয়া সায়নী ঘোষ (Sayani Ghosh)।

নয়া কমিটিতে চারজনকে সহ-সভাপতি, সতেরো জনকে সাধারণ সম্পাদক, সতেরো জন সম্পাদক এবং আটজনকে এক্সিকিউটিভ মেম্বার করা হয়েছে৷ নয়া কমিটিতে জায়গা পেলেন প্রাক্তন বাম মন্ত্রী প্রয়াত ক্ষিতি গোস্বামীর কন্যা বসুন্ধরা গোস্বামী। সাধারণ সম্পাদকের পদ দেওয়া হয়েছে তাঁকে। একইভাবে সাধারণ সম্পাদকের পদে আনা হয়েছে মন্ত্রী শশী পাঁজার কন্যা পূজা পাঁজাকে। দলের যুব সংগঠনের গুরু দায়িত্বে আনা হয়েছে প্রয়াত মন্ত্রী তথা প্রবীণ নেতা সাধন পাণ্ডের কন্যা শ্রেয়া পান্ডেকে। তাঁকে যুব তৃণমূলের সম্পাদক করা হয়েছে৷

- Advertisement -

দলীয় সূত্রের খবর, নয়া কমিটিতে এবারে প্রায় অর্ধেক মুখই নতুন৷ বাদ গিয়েছেন অনেকে৷ আবার অনেকের নাম নিশ্চিত থাকার পরও শেষ মুহূর্তে বাদ পড়তে হয়েছে৷ স্বভাবতই, পুরো ঘটনায় ফের সামনে এসেছে পরিবারতন্ত্রের প্রসঙ্গ৷ তবে প্রথম থেকেই এক নম্বরে ছিলেন সায়নী (Sayani Ghosh)৷ বিরোধীরা টিপ্পনি কেটে বলছেন, ‘‘পিসি ভাইপোর দলে পরিবারতন্ত্রের ছায়া থাকাটাই স্বাভাবিক৷’’  যদিও শাসকদলের দাবি, যোগ্যতার নিরিখেই সকলে জায়গা পেয়েছেন৷

আরও পড়ুন: বিশেষ এই মেলায় জুয়া খেলে মেয়েরা, পাহারা দেয় পুরুষ, পুলিশ যেন ‘দর্শক’

আরও পড়ুন: ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ভুয়ো শিক্ষকদের তালিকা প্রকাশের নির্দেশ কলকাতা হাই কোর্টের

https://play.google.com/store/apps/details?id=app.aartsspl.khaskhobor