লাদাখ সীমান্তে চিনের গতিবিধি উদ্বেগজনক, ভারতকে সতর্ক করলেন আমেরিকা সেনার কমান্ডিং জেনারেল

0
112

লাদাখ: ২০২০ সালের ১৫ জুন গালওয়ানে সংঘর্ষের পর থেকেই ভারত-চিনের সম্পর্কের অবনতি হয়েছে। লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর কিছু জায়গা নিয়ে সমাধান মিললেও আরও বেশ কয়েকটি জায়গা নিয়ে দুই দেশ সমাধানসূত্র বের করতে পারেনি। ভারত-চিনের শীর্ষ সামরিক কর্তারা বৈঠক করেছেন একাধিক দফায়। তবে এর মধ্যেই সীমান্তে চিনের পদক্ষেপ ভারতের চিন্তা বাড়িয়েছে। এর মধ্যেই এবার আরও একবার ভারতকে সতর্ক করল আমেরিকা সেনার কমান্ডিং জেনারেল চার্লস এ ফ্লিন। সীমান্তে চিন যে পরিকাঠামো গড়ছে তা অত্যন্ত”উদ্বেগজনক” বলেই জানিয়েছেন তিনি।

লাদাখের কাছে চিনা কার্যকলাপ “চোখ খুলে দেওয়ার মতো” এবং তাঁদের তৈরি করা কিছু পরিকাঠামো উদ্বেগজনক বলেই ভারতকে সতর্ক করেছে আমেরিকা সেনার কমান্ডিং জেনারেল। হিমালয় সীমান্ত জুড়ে চিনের পরিকাঠামো নির্মাণেকে চার্লস এ ফ্লিন “অস্থিতিশীল এবং ক্ষতিকারক আচরণ” বলেই উল্লেখ করেছেন। সেই সঙ্গেই ভারতকে সতর্ক করে বলেছেন, “আমি বিশ্বাস করি যে কার্যকলাপের স্তরটি চোখ খুলে দেওয়ার মতো। আমি মনে করি ওয়েস্টার্ন থিয়েটার কমান্ডে যে কিছু পরিকাঠামো তৈরি করা হচ্ছে তা উদ্বেগজনক।” জেনারেল ফ্লিন বলেছেন, এই অঞ্চলে চিনের “ক্রমবর্ধমান এবং ছলনাময় পথ, এবং অস্থিতিশীল ও ক্ষয়কারী আচরণ সহায়ক নয়।”

- Advertisement -

আরও পড়ুন- টাটা গ্রুপের হাত ধরে তৈরি হতে চলেছে দেশের বৃহত্তম আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর

বাছা একদল সাংবাদিকের সঙ্গে কোথা বলার সময়েই এই মন্তব্য করেছেন ফ্লিন। আমেরিকার পক্ষ থেকে তিনি এশিয়া-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের দেখভাল করেন। বর্তমানে মার্কিন জেনারেল ভারতে চার দিনের সফরে রয়েছেন। মঙ্গলবার তিনি সেনাপ্রধান জেনারেল মনোজ পান্ডের সঙ্গে দেখা করেন এবং দ্বিপাক্ষিক প্রতিরক্ষা সহযোগিতা সম্পর্কিত বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন। লাদাখ প্রসঙ্গে জনাইয়ে রাখা ভাল, এই ঘটনার আগেই লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা থেকে ২০ কিমি দূরে চিনের সেতু নির্মাণের ছবি ধরা পড়েছে। যেধীরে ধীরে সীমান্তে যুদ্ধের সরঞ্জাম আনার কাজ করছে বলেও ভারতকে সতর্ক করেছে একাধিক সুরক্ষা মাধ্যম। কথা মেনেছে ভারত সরকারও। চিনের সমস্ত গতিবিধির উপরে নজর রাখছে বলেও জানানো হয়েছে বিদেশমন্ত্রকের পক্ষ থেকে।