পুলওয়ামা হামলায় জড়িত ১৯ জন জঙ্গির মধ্যে ৮ জনকে নির্মূল করা হয়েছে: ADGP Kashmir

0
25

শ্রীনগর: ২০১৯ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি জম্মু-কাশ্মীরের একটি ঘটনা স্তব্ধ করে দিয়েছিল গোটা দেশকে। আত্মঘাতী বোমা হামলায় ছিন্নবিচ্ছিন হয়ে গিয়েছিল ভারতীয় সেনাদের দেশ। সেই ঘটনার আজ বছর পূর্ণ হয়েছে। ঘটনা এখনও গোটা দেশবাসীর মনে এখনও তাজা। পুলওয়ামা হামলার বছর পূর্তিতে কাশ্মীর জোনের এডিজিপি  বিজয় কুমার মঙ্গলবার নিশ্চিত করে জানিয়েছেন হামলার সঙ্গে যুক্ত ১৯ জনের মধ্যে কতজনকে খতম করা হয়েছে।

এডিজিপি জানিয়েছেন,  পুলওয়ামা হামলায় জড়িত ১৯ জন সন্ত্রাসবাদীর মধ্যে ৮ জনকে খতম করা হয়েছে। বাকি ৭ জনকে জেলে পাঠানো হয়েছে এবং ৪ জন এখনও পাকিস্তানে লুকিয়ে রয়েছে। পুলওয়ামায় জঙ্গি  হামলায় শহিদ হয়েছিলেন ৪০ জন সিআরপিএফ জওয়ান । সেই ঘটনা নিয়ে উঠেছিল একাধিক প্রশ্ন। তবে তদন্তে নেমে এনআইএ উদ্ধার করে একাধিক চাঞ্চল্যকর সব তথ্য। খুঁজে বের করা হয় হামলার সঙ্গে জড়িত সন্ত্রাসবাদীদের। আরও একটি বর্ষপূর্তিতে সংবাদ মাধ্যমের  সামনে এসেছেন জম্মু-কাশ্মীরের শীর্ষ পুলিশ কর্তা। ADGP জানিয়েছেন,  “মোট ১৯ জন সন্ত্রাসী  ২০১৯ সালের পুলওয়ামা হামলায় জড়িত ছিল।” তিনি আরও জানিয়েছেন, “৭-৮ জন স্থানীয় জইশ জঙ্গিরা চলে  গিয়েছে এবং পুলওয়ামায় সক্রিয় মুসা সুলেমানি সহ ৫-৬ জন পাকিস্তানি সন্ত্রাসবাদীকে শীঘ্রই নিষ্ক্রিয় করা হবে৷”

- Advertisement -

আরও পড়ুন: ৭০ বছর ধরে গির্জায় যৌন নির্যাতন একের পর এক শিশুকে, টু শব্দ করার সাহস ছিল না কারও

সন্ত্রাসবাদ নিয়ে উপত্যকার পরিস্থিতি নিয়েও তথ্য জানিয়েছেন এডিজিপি  বিজয় কুমার। জঙ্গি নিয়োগ সম্পর্কে বলতে গিয়ে তিনি জানিয়েছেন।  জম্মু ও কাশ্মীরে ৩৭ জন সক্রিয় সন্ত্রাসী রয়েছে এবং শ্রীনগরে নতুন কোনো সন্ত্রাসী নিয়োগ করা হয়নি। তবে জইশ গোষ্ঠী গত ৬ মাসে নতুন করে নিয়োগ বৃদ্ধি করেছে। তবে তিনি জানিয়েছেন  উপত্যকায় সন্ত্রাসবাদ বেড়ে উঠতে দেওয়া হবে না। ভারতের উপর আক্রমণ করা হবে ছেড়ে কথা বলা হবে না বলেও জানান তিনি।