বিজেপির সঙ্গ ছেড়ে বিহারের অষ্টমবারের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নিলেন Nitish Kumar

0
28
Nitish kumar Tejashwi Yadav

পাটনা: মঙ্গলবারেই রাজনৈতিক মহলের জল্পনা সত্যি করে বিজেপির সঙ্গ ছাড়েন নীতিশ কুমার। সেই সঙ্গেই রাজ্যপালের কাছে গিয়ে বিহাররে মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে পদত্যাগ পত্র জমা দেন। বিজেপির সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করার এবং মহাগঠবন্ধনের (RJD, Congress এবং Left) সঙ্গে আবার হাত মেলানোর পরেই বুধবার পাটনার রাজভবনে অষ্টমবাররে মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নিয়েছেন নীতিশ কুমার। সেই সঙ্গেই রাজ্যের উপ-মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নিয়েছেন লালু প্রসাদ যাদবের পুত্র তেজস্বী যাদব। এই শপথগ্রহণের পরেই বিহারে তৈরি হল JDU-RJD-র মহাজোট।

অষ্টম বারের জন্য বিহারের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেওয়ার পরপরই, নীতীশ কুমার বিজেপির অভিযোগের পাল্টা জবাব দিয়েছেন। বিজেপির সঙ্গে জোট থেকে বেরিয়ে এসে এবং রাষ্ট্রীয় জনতা দলের (RJD) সঙ্গে জোট বেঁধে জনসাধারণের আদেশের অবমাননা করেছেন। বলেই অভিযোগ উঠেছিল তাঁর বিরুদ্ধে। মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেওয়ার পরেই তিনি বলেছেন, “আমি ২০২০ সালের (বিধানসভা ভোট) ফলাফলের পরে মুখ্যমন্ত্রী হতে চাইনি, কিন্তু আমাকে চাপের মধ্যে রাখা হয়েছিল। আপনি দেখুন কি হয়েছে।” এর পরেই ২০১৫ সালের নির্বাচনের কথা উল্লেখ করে বলেছেন, “২০১৫ সালে আমরা কতটি আসনে জিতেছিলাম! আর দেখুন আমরা কি কম হয়ে গেছি। দলের লোকদের জিজ্ঞাসা করুন তাদের কী কমানো হয়েছে।” নীতিশের সাফ কথা, “আমি থাকি বা না থাকি, লোকদের যা বলার বলতে দিন।” ২০২৪ সালের নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রীর মুখ হিসাবে নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে লড়বেন কিনা সেই সম্পর্কে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেছেন, “আমি প্রধানমন্ত্রী পদের প্রার্থী নই। প্রশ্ন হল যে ২০১৪ সালে যিনি এসেছিলেন তিনি কি ২০২৪ সালে জিতবেন। গত দেড় মাসে আমি মিডিয়ার সাথে কথা বলা বন্ধ করে দিয়েছি।”

- Advertisement -

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে নীতীশ কুমার, তেজস্বী যাদবের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগে মহাগঠবন্ধন ত্যাগ করেছিলেন। তারপরেই বিজেপির সঙ্গে হাত মিলিয়েছিলেন। তবে বিজেপির সঙ্গে সেই জোট ভেঙে পুরানো সঙ্গী আরজেডি-র সঙ্গেই ফের যুক্ত হয়েছেন। বিহারে এই পালাবদল ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের আগে রাজ্য সহ কেন্দ্রের বিজেপির কাছে বড় ধাক্কা বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহলের একাংশ।

https://play.google.com/store/apps/details?id=app.aartsspl.khaskhobor