ধোঁয়াশার চাদর কাটিয়ে নীল আকাশের উঁকি, দিল্লিবাসীর জন্য আরও স্বস্তির খবর

0
16
delhi Air Pollution

নয়া দিল্লি- রাত থেকে শুরু হয়েছে প্রবল হাওয়া। আর এই হাওয়ার বেগের সঙ্গে অনেকটা কমেছে দিল্লির বাতাসে দূষণের মাত্রা (delhi pollution)। দক্ষিণ-পূর্ব বাতাসের বেগের সঙ্গে ৫ শতাংশ কমেছে শস্য পোড়ান থেকে উদ্ভূত দূষণ।

আরও পড়ুন : ইস্টবেঙ্গলের জন্যই জাতীয় দলে খেলা হয়নি আমার, চাঞ্চল্যকর বিবৃতি এই ফুটবলারের

- Advertisement -

বুধবার দিল্লির বাতাসে AQI ছিল ২৬০। মাত্র একদিন আগেই যা এসে দাঁড়িয়েছিল ৩৭২ এ। অক্টোবরের ২০ তারিখের পর এটাই সব থেকে কম AQI। প্রতিবছর নভেম্বর মাসে দিল্লিতে বাতাসে দূষণের পরিমাণ বাড়তে থাকে। এর অন্যতম কারণ উত্তর ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে শস্য পোড়ানো। বুধবার রাতে প্রবল বাতাসের জেরে দূষণের পরিমাণ কমতেই দেখা মিলেছে নীল আকাশের। সরে গেছে ধোঁয়াশার চাদর। মঙ্গলবার ছিল ৮০০ মিটার থেকে দৃশ্যমানতা। বুধবার তা বেড়ে হয় ১৫০০ মিটার। প্রবল বেগে বাতাসের পাশাপাশি মঙ্গলবার পূর্ব রাজস্থানে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি ও হরিয়ানার কিছু কিছু জায়গায় বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির প্রভাব পড়েছে দিল্লির বায়ু দূষণে। ভিকে সোনি, head, environment monitoring and research centre প্রধান জানিয়েছেন বৃহস্পতিবারও বাতাস poor ক্যাটাগরিতে থাকবে। শুক্রবার থেকে বাতাসে দূষণের মাত্রা আরও কিছুটা কমবে উত্তরপশ্চিম বাতাসের জন্য। যদিও উত্তর-পশ্চিম বায়ু শস্য পড়ানোর ফলে যে দূষণ বাড়ছে তাকে দিল্লির বাতাসে টেনে আনতে সহায়তা করে। তবে বাতাসের বেগ বাড়লে এর উলটো ছবি ধরা পড়বে। নামবে দূষণের মাত্রা। জানালেন সোনি।

আরও পড়ুন :রাজ্যের মন্ত্রীর নাম করে লক্ষাধিক টাকা আত্মসাৎ, গ্রামবাসীদের হাতে আটক টলিপাড়ার অভিনেতা

কমেছে দিল্লির বাতাসে দূষণ (delhi pollution)। বাতাসের মান একটু ভালোর দিকে থাকায় বুধবার থেকেই খুলে গিয়েছে রাজধানীর সব প্রাথমিক স্কুল। সরকারি দফতরের ৫০ শতাংশ কর্মীর বাড়ি থেকে কাজ করার নির্দেশও বাতিল করা হয়েছে। দিল্লির পাশাপাশি নয়ডার স্কুলও খুলে গিয়েছে বুধবার থেকে। AQI ০ থেকে ৫০ থাকলে বলা হয় good, AQI ৫১ থেকে ১০০ থাকলে বলা হয় satisfactory, AQI ১০১ থেকে ২০০ থাকলে বলা হয় moderate, AQI ২০১ থেকে ৩০০ থাকলে বলা হয় poor, ৩০১ থেকে ৪০০ থাকলে বলা হয় very poor, ৪০১ থেকে ৫০০ থাকলে বলা হয় severe।