গোহত্যার প্রতিবাদে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ, রাজ্যের দুটি গ্রামে জারি কারফিউ বন্ধ ইন্টারনেট পরিষেবা

0
21

জয়পুর: গত ১১ জুলাই একজন মহিলা পুলিশকে জানিয়েছিলেন যে রাজস্থানের চিদিয়া গান্ধী গ্রামে গরু হত্যা করা হয়েছে। এমনকি নমুনা সংগ্রহ করে ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। সেই ঘটনা নিয়েই গ্রামে উত্তাপ ছড়িয়ে পড়ে। গোহত্যায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবিতে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষেও জড়িয়ে পড়ে গ্রামবাসীরা। পরিস্থিতি সামাল দিতেই রাজ্যের দুই দুটি গ্রামে জারি করা হয়েছে কারফিউ। বন্ধ করা হয়েছে ইন্টারনেট পরিষেবা।

রাজস্থানে বুধবার সন্ধ্যায় ঘটা সহিংসতার ঘটনায় পঁয়তাল্লিশ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গোহত্যায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবিতে বিক্ষোভকারীরা পুলিশের সাথে সংঘর্ষের পর, রাজস্থানের হনুমানগড় জেলার দুটি গ্রামে কারফিউ জারি করা হয়েছে। ভিরানি থানা এলাকার অন্তর্গত গান্ধীবাদি এবং চিদিয়া গান্ধী এই দুই গ্রামে কারফিউ জারি করা হয়। জেলা কালেক্টর নাথমল দিদেল জানিয়েছেন, ” বুধবার সন্ধ্যায় গান্ধীবাদি এবং চিদিয়া গান্ধী গ্রাম পঞ্চায়েতে কারফিউ জারি করা হয়েছে। শুধুমাত্র জরুরি পরিষেবার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। মোবাইল ইন্টারনেট পরিষেবাও স্থগিত করা হয়েছে।”

- Advertisement -

আরও পড়ুন- কারা এসেছিল চুরি করতে, মুখ্যমন্ত্রীর সততা থাকলে ব্যবস্থা নিক: Sujan Chakraborty

তিনি ঘটনা প্রসঙ্গে আরও জানিয়েছেন, “একটি এফআইআর নথিভুক্ত করা হয়েছিল এবং ছয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছিল কিন্তু গান্ধীবাদির মানুষ আরও গ্রেফতারির দাবি, একটি ধর্মীয় স্থানের পরিদর্শন এবং সিসিটিভি খতিয়ে দেখার মতো অন্যান্য দাবি তুলেছিল। সহিংসতার ঘটনায় ৪৫ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।