পুরসভার কর্মীরা তৃণমূলের হয়ে কাজ করছে, অভিযোগ বিজেপির

0
26

নিজস্ব সংবাদদাতা, নদিয়া: বিজেপি-র দলীয় কার্যালয় ভাঙচুরের ঘটনায় রণক্ষেত্র চেহারা নিল নদিয়ার কল্যাণী থানার ১ নম্বর ওয়ার্ডের অনুকূল মোড়ে৷ অভিযোগ, বিজেপি এসসি মোর্চা জেলা সভাপতিকে লক্ষ্য করে ধারালো অস্ত্রের কোপ মারা হয়৷ ঘটনাস্থলে বিশাল পুলিশবাহিনী মোতায়ন করা হয়েছে৷

জানা গিয়েছে, নদিয়া কল্যাণী পুরসভার পক্ষ থেকে ১ নম্বর ওয়ার্ডের অনুকূল মোড় এলাকায় রাস্তার পাশে থাকা বিভিন্ন দোকান ভাঙার কাজ চলছিল। সেখানে দীর্ঘদিন ধরে বিজেপি-র একটি দলীয় কার্যালয় ছিল৷ ঠিক অন্যান্য দোকানপাট ভাঙার সঙ্গে সঙ্গে পুর কর্মীরা বিজেপির দলীয় কার্যালয়টি ভাঙতে যায়।

ঘটনার প্রতিবাদ করতে যান এসটি মোর্চার সভাপতি শ্রীনিবাস মন্ডল৷ তখনই পুর কর্মীদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়ে বিজেপি কর্মীরা। অভিযোগ, এসটি মোর্চার সভাপতি শ্রীনিবাস মণ্ডলের উপর চড়াও হয় পুরসভার কর্মীরা৷ তাঁকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে মাথায় আঘাত করার অভিযোগ ওঠে৷

বিজেপি কর্মীদের দাবি, পুর কর্মীরা কার্যত তৃণমূল নেতাদের নির্দেশে কাজ করছে। রাস্তার পাশে শুধু বিজেপির দলীয় কার্যালয়ে নয় তৃণমূলেরও তিনটি দলীয় কার্যালয় রয়েছে। বিজেপি কর্মীরা প্রশ্ন তুলেছেন, তাহলে শুধু বিজেপি কার্যালয় ভাঙার কাজ করছে কেন পুরসভার কর্মীরা? নিরপেক্ষ কাজ কেন করছে না পুরসভার কর্মীরা?

এই বিষয়ে নদিয়া জেলা দক্ষিণে এসটি মোর্চার সভাপতি শ্রীনিবাস মণ্ডল বলেন, ‘‘যারা পুর কর্মচারী হিসেবে কাজ করতে এসেছিল তারা প্রত্যেকে তৃণমূলের সক্রিয় কর্মী। আমি প্রতিবাদ করায় প্রথমে আমার ওপর চড়াও হয়ে কিল ঘুষি মারা হয়। এরপরে একটি ধারালো অস্ত্র দিয়ে আমার মাথায় আঘাত করার চেষ্টা হয়।’’