কলকাতা পুলিশের পরিচয় দিয়ে হোয়াটসঅ্যাপে নগ্ন ভিডিও

0
42
Triple Century in Corona, Kolkata Police has been hit by a wave of infection
Triple Century in Corona, Kolkata Police has been hit by a wave of infection

কলকাতা: হোয়াটসঅ্যাপের ডিপিতে কলকাতা পুলিশের লোগো৷ প্রথমে অশ্লীল ভিডিও দেখান৷ পরে নিজেদের পুলিশ বলে পরিচয় দিয়ে হাতিয়ে নিয়েছে লক্ষাধিক টাকা৷ বিহার থেকে এই চক্র কাজ করছিল৷ অবশেষে কলকাতা পুলিশের জালে ধরা পড়ল দুই ব্যক্তি৷ ধৃতদের ব্যাঙ্কশাল আদালতে তোলা হলে তাদের ৯ জুলাই পর্যন্ত পুলিশ হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেন বিচারক৷

এই জালিয়াতির ঘটনা প্রকাশ্য আসে জানুয়ারি মাসে৷ সেই সময় কলকাতার এক ব্যক্তি লালবাজার সাইবার থানায় লক্ষাধিক টাকা জালিয়াতির অভিযোগ করেন৷ অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তে নামে পুলিশ৷ ওই ব্যক্তি যে ই-ওয়ালেটে টাকা পাঠিয়েছিলেন সেটি ও মোবাইলের সূত্র ধরে পুলিশ জানতে পারে এই চক্রটি কাজ করছে বিহারে বসে৷

কলকাতা পুলিশ রবিবার পৌঁছে যায় বিহারে৷ সেখান থেকে উৎপল সিং ও রীতেশ সিং নামে দুই অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে৷ এদিনই ধৃতদের ব্যাঙ্কশাল আদালতে তোলা হলে তাদের ৯ জুলাই পর্যন্ত পুলিশ হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেন বিচারক৷ পুলিশ ধৃতদের জেরা করে তারা কতগুলি জালিয়াতি করেছে, তা জানার চেষ্টা হচ্ছে৷

তারা কীভাবে অশ্লীল ভিডিও দেখাতো বা কীভাবে টাকা হাতিয়ে নিত এই বিষয়ে পুলিশ বিস্তারিত জানাল৷ কলকাতার বেশ কয়েকজন বাসিন্দাদের কাছে একটা অপরিচিত ফোন নম্বর থেকে ভিডিও কল করা হয়৷ তারা সেই ভিডিও কল ধরলেই স্ক্রিনে ভেসে উঠত এক মহিলার অশ্লীল ভিডিও৷

জালিয়াতরা সেই ভিডিও কল ‘ক্যাপচার’ করে রাখত৷ এর পরই ওই ব্যক্তির কাছে ডিপিতে কলকাতা পুলিশের লোগো দেওয়া এমন একটি হোয়াটসঅ্যাপ থেকে মেসেজ করে জালিয়াতিরা৷ ওই মেসেজে এক ব্যক্তি নিজেকে কলকাতা পুলিশের এক কর্তা বলে পরিচয় দেয়৷

এরপর ভিডিও কল ধরা ওই ব্যক্তিকে জালিয়াতিরা জানায়, তিনি এক মহিলার সঙ্গে অশ্লীল আচরণ করেছেন৷ সেই ঘটনা প্রমাণ সহ ওই মহিলা কলকাতা পুলিশকে অভিযোগ জানিয়েছে৷ তাই তাঁকে গ্রেফতার করা হবে৷ যদি বাঁচতে চায় তাহলে তাঁকে টাকা দিতে হবে৷

নিজেদের দোষ না থাকা সত্বেও ওই ব্যক্তিরা নিজেদের গ্রেফতারি রুখতে টাকা দিত রাজি হত৷ এইভাবে কলকাতা একাধিক ব্যক্তির কাছ থেকে বিহারে বসে টাকা নিত জালিয়াতিরা৷ এই ঘটনার তদন্তে নেমেই উৎপল সিং ও রীতেশ সিং-কে গ্রেফতার করে কলকাতা পুলিশ৷