ফিফা বিশ্বকাপে Sanju Samson -র ব্যানার, স্টেডিয়ামে সমর্থকদের প্রতিবাদ

0
48
Samson's craze seen in FIFA World Cup, fans reached the stadium with banners in support of Sanju

স্পোর্টস ডেস্ক: নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে ভারতীয় দল থেকে বাদ পড়েছেন উইকেটকিপার ব্যাটার সঞ্জু স্যামসন (Sanju Samson)। এর ফলে সঞ্জু ভক্তরা বেশ ক্ষুব্ধ হয়েছে। এই সমর্থকদের মধ্যে কয়েকজন স্যামসনের সমর্থনে ব্যানার নিয়ে প্রতিবাদও করছেন। ফিফা বিশ্বকাপ ২০২২ ম্যাচ দেখতে কাতারে পৌঁছেছেন কয়েকজন সমর্থক। সেই সমর্থকদের হাতে দেখা যাচ্ছে সঞ্জুর স্যামসনের সমর্থনে ব্যানার। দীর্ঘদিন ধরে আইপিএল এবং ঘরোয়া ক্রিকেটে ভালো খেলেছেন, কিন্তু ভারতীয় দলে ধারাবাহিকভাবে সুযোগ পাচ্ছেন না। এই কারণে নির্বাচক ও ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্টের উপর ক্ষুব্ধ সঞ্জু স্যামসনের ভক্তরা।

গত কয়েক মাসে যখনই দল ঘোষণা করা হয় বা সঞ্জু স্যামসন (Sanju Samson) কোনও ম্যাচে খেলার সুযোগ পান না, তখনই সোশ্যাল মিডিয়ায় তার ভক্তরা ক্ষোভ প্রকাশ করেন। স্যামসন ভারত এবং নিউজিল্যান্ডের মধ্যে টি -২০ সিরিজে খেলার সুযোগ পাননি। তবে ওডিআই সিরিজের প্রথম ম্যাচে তিনি ভারতীয় দলের অংশ ছিলেন। এই ম্যাচে তিনি দুর্দান্ত পারফর্ম করেন এবং শ্রেয়াস আইয়ারের সঙ্গে সেঞ্চুরি পার্টনারশিপ করে ভারতকে বিপদ থেকে মুক্ত করেন। তা সত্ত্বেও দলের ভারসাম্য ঠিক না হওয়ায় দ্বিতীয় ম্যাচে দল থেকে বাদ পড়েন তিনি।

- Advertisement -

আরও পড়ুন: ম্যাচের আগে নিখোঁজ গোলকিপার, রিজার্ভ খেলোয়াড়কে নিয়েই বেলজিয়ামকে হারাল মরক্কো

এর পর সঞ্জুর ভক্তরা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন। সঞ্জু স্যামসনের সমর্থনে ব্যানার হাতে কাতারে ফিফা বিশ্বকাপের ম্যাচ দেখতে গিয়েছিলেন কয়েকজন ভক্ত। ব্যানারে লেখা ছিল “ম্যাচ, দল ও খেলোয়াড়ের বাইরে, আমরা তোমার সঙ্গে আছি, সঞ্জু স্যামসন।” এর পাশাপাশি, ব্যানারে সঞ্জু স্যামসনের অনেক ছবি ছিল, যেখানে তাকে রাজস্থান রয়্যালস দলের জার্সিতে দেখা গিয়েছে। অনেকেই মনে করছে, এই সমর্থকেরা রাজস্থান রয়্যালস ফ্যান বেস। দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে সঞ্জু স্যামসনের জায়গায় দীপক হুডাকে দলে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এই প্রসঙ্গে ভারতীয় অধিনায়ক শিখর ধাওয়ান বলেছিলেন যে, দলে ষষ্ঠ বোলার নেই। এই কারণে সঞ্জু স্যামসনের দলে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে দীপক হুডাকে। যদিও ভারত ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যে দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচ বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হয়ে যায়।